1. admin@sobujnagar.com : admin :
  2. sobujnoger@gmail.com : Rokon :
রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪, ০৫:৩৬ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ:
উপকূল সুরক্ষায় বিশেষ পরিকল্পনা গ্রহণের আহ্বান তানোর খাদ্যগুদামে দারোয়ানদের দৌরাত্ম্য বাঘায় পাল্টা পাল্টি কর্মসূচি আওয়ামী লীগের দুই গ্রুপের, সংঘর্ষে আহত অর্ধশতাধিক সিপিএসসি, র‌্যাব-৫, রাজশাহী কর্তৃক ভিকটিম উদ্ধার, অপহরণকারী  গ্রেফতার গাজা অফিসের কাছে হামলায় ২২ জন নিহত : রেডক্রস নয়াদিল্লির রাষ্ট্রপতি ভবনে প্রধানমন্ত্রীকে আনুষ্ঠানিক সংবর্ধনা রাসেল ভাইপার নিয়ে আতঙ্ক নয়, বাড়াতে হবে সাবধানতা ও সচেতনতা : পরিবেশ মন্ত্রণালয় সিলেট ও সুনামগঞ্জে বন্যায় ২০ লাখের বেশি মানুষ ক্ষতিগ্রস্ত : ইউনিসেফ গোপালগঞ্জের মুকসুদপুরের সেই গাছ কি আদৌ কথা বলে? আওয়ামী লীগ কচু পাতার উপর শিশির বিন্দু নয়: ওবায়দুল কাদের

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় পৃথিবীর শীর্ষ বিশ্ববিদ্যালয়ের টানা তৃতীয়বারের তালিকায়

  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৫ জুন, ২০২৪
  • ১৪ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

# শহিদুল্লাহ্ আল আজাদ. খুলনা ব্যুরো………………………………….

যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা ও গবেষণা সংস্থা কোয়াককোয়ারেলি সায়মন্ডসের (কিউএস) পৃথিবীর শীর্ষ বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকায় টানা তৃতীয়বার স্থান পেয়েছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় (খুবি)। র‌্যাঙ্কিংয়ে ১২০১ থেকে ১৪০০ এর মধ্যে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের অবস্থান। ‘কিউএস ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংস ২০২৫: টপ গ্লোবাল ইউনিভার্সিটিস’ শীর্ষক এই তালিকা ০৪ জুন (মঙ্গলবার) রাতে বিশ্বব্যাপী বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর র‌্যাঙ্কিং মূল্যায়নকারী প্রতিষ্ঠান কিউএস তাদের ওয়েবসাইটে প্রকাশ করেছে।

এবার বাংলাদেশ থেকে সরকারি ও বেসরকারি মোট ১৫টি বিশ্ববিদ্যালয় স্থান পেয়েছে। এর আগে ২০২৪ সালের কিউএস ওয়ার্ল্ড ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে ১৪০০+ এ ছিল খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। গ্লোবাল র‌্যাঙ্কিংয়ের পাশাপাশি এ বছর এশিয়ান ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিং (৬০১-৬৫০ এর মধ্যে) এবং সাউদার্ন এশিয়ান ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়েও (১৮৯) মর্যাদাপূর্ণ অবস্থান অর্জন করেছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। কিউএস র‌্যাঙ্কিংয়ের সূচকগুলো হলো একাডেমিক রেপুটেশন, সাইটেশনস পার ফ্যাকাল্টি, অ্যাম্প্লয়মেন্ট আউটকামস, অ্যাম্প্লয়ার রেপুটেশন, ফ্যাকাল্টি-স্টুডেন্ট রেশিও, ইন্টারন্যাশনাল রিসার্চ নেটওয়ার্ক এরং সাসটেইনেবিলিটি। এতে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্জন যথাক্রমে ৬.৯%, ৫.৩%, ৩.৮%, ৫%, ১০.৫%, ১৭.৮% এবং ১%।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের দি অফিস অব ইন্টারন্যাশনাল অ্যাফেয়ার্সের পরিচালক ও র‌্যাঙ্কিং কমিটির আহ্বায়ক প্রফেসর সেহরীশ খান বলেন, বর্তমান উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন দায়িত্ব নেওয়ার পর গবেষণায় বিশেষ গুরুত্ব দেন। পাশাপাশি গবেষণার জন্য যথোপযুক্ত পরিবেশ সৃষ্টিতেও ব্যাপক ভূমিকা রাখেন। তার কর্মমেয়াদের অন্যতম লক্ষ্য ছিল- আন্তর্জাতিক র‌্যাঙ্কিংয়ে অবস্থান সৃষ্টি করা। ইতোমধ্যে কিউএস র‌্যাঙ্কিং, টাইমস হায়ার এডুকেশন র‌্যাঙ্কিং এবং টাইমস হায়ার এডুকেশনের ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে মর্যাদাপূর্ণ অবস্থানে উঠে এসেছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। আগামীতে এ ধারা অব্যাহত থাকলে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্য পূরণ সম্ভব হবে।

রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) প্রফেসর খান গোলাম কুদ্দুস বলেন, বর্তমান উপাচার্যের বলিষ্ঠ নেতৃত্ব ও দূরদর্শিতায় খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের সবক্ষেত্রে পরিবর্তনের ছোঁয়া এখন দৃশ্যমান। যেখানে আন্তর্জাতিক র‌্যাঙ্কিংয়ে স্থান পাওয়া ছিল স্বপ্নের মতো, সেখানে পরপর তিনবার কিউএস র‌্যাঙ্কিং এবং টানা দুইবার টাইমস হায়ার এডুকেশন র‌্যাঙ্কিং ও প্রথমবার টাইমস হায়ার এডুকেশনের ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়ে স্থান পেয়েছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। শিক্ষা ও গবেষণার পাশাপাশি প্রকাশনা, অবকাঠামো উন্নয়নে ব্যাপক অগ্রগতি সাধিত হয়েছে। এই সাফল্য অব্যাহত থাকলে অতিদ্রুত দেশের শ্রেষ্ঠ উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরিণত হবে বলে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়।

খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মাহমুদ হোসেন বলেন, উপাচার্য হিসেবে দায়িত্ব গ্রহণের পর আমার প্রথম লক্ষ্য ছিল- আন্তর্জাতিক র‌্যাঙ্কিংয়ে মর্যাদাপূর্ণ অবস্থান সৃষ্টি করা। এ নিয়ে টানা তৃতীয়বার কিউএস র‌্যাঙ্কিংয়ে স্থান পেয়েছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। তিন বছরের ব্যবধানে র‌্যাঙ্কিংয়ের অবস্থানেও এসেছে উন্নতি। এ ছাড়া টানা দুইবার টাইমস হায়ার এডুকেশন র‌্যাঙ্কিং এবং এ বছরই প্রথম টাইমস হায়ার এডুকেশনের ইয়াং ইউনিভার্সিটি র‌্যাঙ্কিংয়েও স্থান পেয়েছে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়। এটি একটি অন্যরকম অনুভূতি। খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় যে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে এগিয়ে যাচ্ছে এটি তার প্রমাণ।

তিনি আরও বলেন, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের এই বদলে যাওয়ার পেছনে অবদান শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারীদের। শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের গবেষণামুখী কর্মকাণ্ড এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীদের প্রশাসনিক ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য ভূমিকার কারণে এসব কিছু সম্ভব হয়েছে। এই অগ্রযাত্রা অব্যাহত রেখে খুলনা বিশ্ববিদ্যালয় আগামীতে দেশসেরা বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিণত হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

উল্লেখ্য, ২০০৪ থেকে ২০০৯ সাল পর্যন্ত যুক্তরাজ্যভিত্তিক শিক্ষা সাময়িকী টাইমস হায়ার এডুকেশনের সঙ্গে যৌথভাবে সেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করলেও ২০১০ সালে আলাদা হয়ে যায় কিউএস। এরপর থেকে এককভাবেই র‌্যাঙ্কিং প্রকাশ করে আসছে তারা। কিউএসের প্রকাশিত সেরা বিশ্ববিদ্যালয়ের তালিকাকে বিশ্বব্যাপী সবচেয়ে গ্রহণযোগ্য র‌্যাঙ্কিংগুলোর একটি মনে করা হয়। এই র‌্যাঙ্কিংয়ে এখন আটটি সূচকে বিশ্ববিদ্যালয়ের সামগ্রিক মান নিরূপণ করা হয়। প্রতিটি সূচকে ১০০ করে স্কোর থাকে। সব সূচকের যোগফলের গড়ের ভিত্তিতে সামগ্রিক স্কোর নির্ধারিত হয়।#

এই সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ক্যাটাগরির আরো সংবাদ
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট